বছরের হিসাবে ১২৭ হয়ে গেছে লালন ফকিরের তিরোধানের। কিন্তু তাঁর চিন্তা এবং সাধনার প্রভাব বাংলা অঞ্চলে বিপুলকিন্তু কীভাবে তিনি হাজির আছেন, কিভাবে তাকে হাজির করা হচ্ছে? তাঁকে কি আমরা চিনতে পারছি? তার সাধনাকে বুঝতে পারছি? কি প্রক্রিয়ায় বুঝছি? সেই বুঝের পর্যালোচনার উপায় কি? ঠিক কিভাবে তার সেই প্রভাবকে সনাক্ত করবো আমরা? কিভাবে বুঝবো- সংস্কৃতির পন্যায়নের এই কালে, নগরজীবনের বিকাশের এই পর্যায়ে কি তার উপস্থিতি আমাদের সমাজে, জীবনে? বৈঠকের সূত্রপাত করেন অরূপ রাহী। বাংলা-ভারতীয় দর্শনের অনুরাগী অরূপ রাহী বস্তবাদী-সহজিয়া-মার্ক্সিস্ট ধারার ভাবুক ও কর্মী। দুইযুগের বেশী সময় ধরে তিনি বাউল-ফকির-সহজিয়াসহ ভারতীয় বিভিন্ন সাধনার ধারা এবং দার্শনিক প্রস্থান বিষয়ে গবেষণা-অধ্যয়নে যুক্ত। তার প্রকাশনার মধ্যে রয়েছে রুপপুর (কবিতা ও গানের সংকলন), সিভিল সোসাইটিঃ রাজনৈতিক পর্যালোচনা, খনার বিজ্ঞান, লুঙ্গি কাহিনী, ‘বলিউড তারকারা জীবিত নয়, মৃত!’, নায়ক (অডিও এলবাম/লীলা গানের দলের সাথে), রবেনা এ ধন। জীবন যৌবন (লালন ফকিরের গানের এ্যালবাম), লোকায়ত (অডিও এ্যালবাম/লীলা গানের দলের সাথে)